বৃহস্পতিবার, ১৭-জানুয়ারী ২০১৯, ০৫:১২ পূর্বাহ্ন

ইউরোপজুড়ে ভারী তুষারপাত, নিহত ২৩

Sheershakagoj24.com

প্রকাশ : ১২ জানুয়ারী, ২০১৯ ০২:৪৫ অপরাহ্ন

 শীর্ষকাগজ ডেস্ক: ভারী তুষারপাতে তীব্র ঠাণ্ডায় বিপর্যস্ত জার্মানি, সুইডেনসহ ইউরোপের অনেক দেশ। প্রচণ্ড ঠাণ্ডায় ইউরোপ জুড়ে ২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। ইউরোপের পূর্বাঞ্চলীয় দেশ পোল্যান্ডে তীব্র ঠাণ্ডায় এক সপ্তাহে ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে।
আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়, ইতালিতে দুইদিনে প্রচণ্ড ঠাণ্ডার কারণে ৭ জনের প্রাণ গেছে। চেক প্রজাতন্ত্রের প্রাগে তিন জন মারা গেছে। এছাড়াও তুরস্কে তুষারে ঢেকে গেছে ইস্তাম্বুল শহর, বাতিল করা হয়েছে বিমানের বহু ফ্লাইট।
শুভ্র তুষারে ঢাকা এ দৃশ্য আপাতদৃষ্টিতে ভালো লাগলেও, এ তুষারপাতের কারণেই পোল্যান্ডে গত এক সপ্তাহে প্রাণ গেছে ১২ জনের। যাদের অনেকের মৃত্যু হয়েছে সড়ক দুর্ঘটনার কারণে। ভারী তুষারপাতের ফলে সড়ক পিচ্ছিল হয়ে যাওয়ায় যানবাহন চলাচলে বিঘ্ন ঘটছে।
পোল্যান্ডের পুলিশ সদর দফতর থেকে জানানো হয়েছে, একদিনে ২১টি সড়ক দুর্ঘটনার খবর পাওয়া গেছে। তুষারপাতের কারণে তীব্র ঠাণ্ডায় সবচেয়ে ভোগান্তিতে পড়েছেন গৃহহীনরা। শনিবার তাপমাত্রা ছিলো মাইনাস ১৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।
তারা বলেন, যেসব জায়গায় গৃহহীনরা বেশি সেসব জায়গায় টহল দিচ্ছি আমরা, তাদের সাহায্যে জরুরি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছি। আমরা গৃহহীনদের অভ্যর্থনা কেন্দ্রে পাঠানোর ব্যবস্থাও করছি।
পোল্যান্ডের মত অবস্থা ইতালিতেও। ভারী তুষারপাতে ২ দিনে প্রচণ্ড ঠাণ্ডার কারণে ৭ জনের প্রাণ গেছে। গ্রিসে তাপমাত্রা নেমে এসেছে মাইনাস সেভেন ডিগ্রি সেলসিয়াসে। গ্রিসের লেসবস দ্বীপে ভারী তুষারে ঢেকে গেছে শরণার্থী শিবিরের তাঁবুগুলো। প্রচণ্ড ঠাণ্ডায় বেঁচে থাকা দায় হয়েছে শরণার্থী শিবিরে বাসকরা শিশু ও বয়স্কদের।
ভারী তুষারে ঢেকে গেছে তুরস্কের ইস্তাম্বুল। তুর্কি এয়ারলাইন্স সাড়ে ছয়শর'ও বেশি ফ্লাইট বাতিল করেছে। হাজার হাজার যাত্রী অপেক্ষায় আছেন স্বাভাবিক পরিস্থিতির। রাস্তাঘাট তুষার জমে থাকায় ব্যাহত হচ্ছে যানচলাচল।
তিনি বলেন, 'তুষারপাত অবশ্যই সুন্দর, কিন্তু ইস্তাম্বুলে তুষারপাত মানে জীবনযাত্রা থমকে যাওয়া। রাস্তাঘাটের অবস্থা খারাপ হয়ে যায় আর যানজট লেগে যায়।'
বেলজিয়ামেও একই পরিস্থিতি। তুষারপাতে ব্যাহত হচ্ছে যানচলাচল, প্রায়ই ঘটছে দুর্ঘটনা। আর সুইজারল্যান্ডে ভারী তুষারপাতে তাপমাত্রা নেমে এসেছে মাইনাস ২৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।
শীর্ষকাগজ/এনএস