বুধবার, ২১-নভেম্বর ২০১৮, ১২:১৫ অপরাহ্ন
  • জেলা সংবাদ
  • »
  • আ’ লীগ কার্যালয়ে বিস্ফোরণ, বিএনপির ৭৯ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

আ’ লীগ কার্যালয়ে বিস্ফোরণ, বিএনপির ৭৯ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

Shershanews24.com

প্রকাশ : ০৮ নভেম্বর, ২০১৮ ০৭:৪৬ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, বগুড়া: বগুড়ায় সারিয়াকান্দিতে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক কার্যালয়ে ককটেল বিস্ফোরণের অভিযোগে ৩৯ জনের নাম উল্লেখসহ বিএনপি ও এর অঙ্গ সংগঠনের ৭৯ জন নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে দুটি মামলা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) দুপুরে সারিয়াকান্দি থানায় এ মামলা করা হয়। 
আওয়ামী লীগের সারিয়াকান্দি উপজেলা কার্যালয় ও হাটশেরপুর ইউনিয়নের খোর্দ্দবলাইল কার্যালয়ে বুধবার (৭ নভেম্বর) রাতে ওই ককটেল হামলার ঘটনা ঘটে- এমন অভিযোগে মামলা দুটি দায়ের করেন খোর্দ্দবলাইল সাংগঠনিক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এফাছ উদ্দিন ও পৌর এলাকার ৪ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম।
মামলার বাদী জাহিদুল ইসলাম জানান, একদল দুর্বৃত্ত বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলা আওয়ামী লীগের অফিস লক্ষ্য করে পরপর ৫-৬টি ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায়। এসময় আশপাশের লোকজন আতঙ্কিত হয়ে ছোটোছুটি করেন। ককটেল বিস্ফোরণ করে তারা ‘খালেদা জিয়া ভয় নাই, রাজপথ ছাড়ি নাই’ শ্লোগান দিয়ে মোটরবাইকে করে পালিয়ে যায়।
অপর মামলার বাদী এফাজ উদ্দিন জানান, বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে মুখোশধারী একদল দুর্বৃত্ত মোটরবাইকে খোর্দ্দবলাইল পার্টি অফিসের সামনে এসে বিভিন্ন শ্লোগান দিয়ে আতঙ্ক সৃষ্টি করে। এরপর তারা কয়েকটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে পালিয়ে যায়। পরে সারিয়াকান্দি থানায় খবর দিলে পুলিশ আসে। পুলিশ উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয় থেকে একটি ও খোর্দ্দবলাইল আওয়ামী লীগের কার্যালয়ের সামনে থেকে তিনটি অবিস্ফোরিত ককটেল উদ্ধার করে।
সারিয়াকান্দি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আল আমিন আসামিদের নাম জানাতে অস্বীকৃতি জানিয়ে বলেন, ‘আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে ককটেল হামলার ঘটনায় পৃথক মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।’
উপজেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান হিরু মণ্ডল জানান, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা নিজেরা ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে বিএনপির ওপর দোষ চাপানোর চেষ্টা করছে। এ ঘটনার সঙ্গে তার সংগঠনের কেউ জড়িত নেই।’
শীর্ষনিউজ/এনএস