বুধবার, ১৭-অক্টোবর ২০১৮, ০২:৩০ অপরাহ্ন

শিবির সন্দেহে হিন্দুও আটক!

Shershanews24.com

প্রকাশ : ১১ অক্টোবর, ২০১৮ ০৯:৪৮ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, ফেনী : ফেনীতে একটি কোম্পানির সেমিনার থেকে শতাধিক স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীকে স্থানীয় ছাত্রলীগ ক্যাডারদের সহযোগিতায় আটক করেছে পুলিশ।
বুধবার রাতে শহরের শহীদ শহিদুল্লাহ কায়সার সড়কের পাপ্পু মিয়ার ভবন থেকে তাদের আটক করা হয়। আটকৃতদের মধ্যে বেশিরভাগ বয়সে তরুণ বলে জানিয়েছে পুলিশ।
ফেনী মডেল থানা পুলিশের দাবি, জামায়াত-শিবিরের নেতাদের নির্দেশে নাশকতার পরিকল্পনা নিয়ে তারা ওই ভবনে জড়ো হয়েছিল।
পুলিশের এ দাবি নাকচ করে আটক তরুণরা দাবি করেছে, তিয়ানশি বাংলাদেশ লিমিটেডের সেমিনারে যোগ দিতে জেলার বিভিন্ন উপজেলা থেকে তারা এসেছে।
বাড়ির মালিক ও স্থানীয় লোকজন জানান, মাল্টিলেভেল ওই কোম্পানির কাছে চাঁদা দাবি করে আসছিল একটি মহল। কিন্তু চাঁদা দিতে তারা অপারগতা প্রকাশ করায় ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ের দিনে নাশকতার পরিকল্পনাকারী হিসেবে পুলিশকে মিথ্যা তথ্য দিয়ে তাদের ধরিয়ে দেয়া হয়েছে।
ফেনী মডেল থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে বৃহস্পতিবার বিকালে জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ জানতে পারে আটককৃতরা নাকশতার পরিকল্পনা নিয়ে ওই স্থানে সমাবেত হয়েছে।
তারা জামায়াত-শিবিরের কর্মী কি না এমন প্রশ্ন করা হলে ওসি বলেন, এ বিষয়ে আটকের ২৪ ঘণ্টা পরও নিশ্চিত হওয়া যায়নি তবে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
কোম্পানিটির ফেনীর ডিলার সামি উদ্দিন জানান, আটককৃতদের মধ্যে অনেকেই ছাত্রলীগ নেতাকর্মী ও হিন্দু সম্প্রদায়ের যুবক রয়েছে। আটককৃতদেরকে ছাড় দিতে পুলিশ মোটা অংকের টাকা দাবি করছে বলে তিনি অভিযোগ করেন।
শীর্ষনিউজ/প্রতিনিধি/এমই